শিরোনাম :
চাঁদপুর ফরিদগঞ্জ ষোলদানা চৌধুরী বাড়িতে সন্ত্রাসী হামলা ধামইরহাটে আওয়ামীলীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিক ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত ধামইরহাটে জোরপূর্বক গাছ কাটার অভিযোগ উলিপুরে এম আর ফাউন্ডেশনের অঙ্গ সংগঠন নেফড়া কাঁঠালীপাড়া মানব কল্যান সংঘের ঈদ পূর্ণমিলনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত ধামইরহাট বড়থা ডি আই ফাজিল মাদ্রাসার বেহাল অবস্থা নওগাঁয় ডিবি পুলিশের অভিযানে ১০১ কেজি গাঁজাসহ গ্রেফতার ২ ধামইরহাটে অপহরণ মামলার আসামি ইয়াদুল পুলিশের হাতে আটক ধামইরহাটে অর্ধ বার্ষিকী সাফল্য উদযাপন ও যুব সমাবেশ অনুষ্ঠিত কুড়িগ্রামে যুব সংগঠন ব্যবস্থাপনা বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত নওগাঁর পত্নীতলায় তিন মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে র‌্যাব-৫

গরিব দুঃখীর উপর অন্যায় অত্যাচার জেলেকে পিটিয়ে গুরুতর জখম করল খেলনা ইউনিয়নের শহিদুল ইসলাম

রিপোর্টারের নাম
  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ১ ডিসেম্বর, ২০২২
  • ৪৪৮ বার পঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

নওগাঁ জেলার ধামইরহাট উপজেলার খেলনা ইউনিয়নের মোঃ মাসুদ রানা (২২) পিতা মৃত্যু.বাবুল হোসেনর ছেলেকে আতঙ্কিতভাবে পিটিয়ে গুরুতর জখম করেছে মাছ চাষী শহিদুল ইসলাম । ঘটনায় গুরুতর আহত হয়ে মাসুদ রানা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি রয়েছে।
বিবাদী মোঃ শহিদুল ইসলাম (খয়্যা) একই গ্রামের মৃত: জফির উদ্দিনের ছেলে। বিবাদীর মুখে জানা যায়, শহিদুল ইসলাম তার পুকুরে মাছ ধরার জন্য জেলে মাসুদ রানাকে ডেকে নিয়ে যায়।পুকুরে মাছ ধরার জন্য জালের ঘাই টানার( চাপানোর) বিষয়াদি নিয়ে কথা কাটাকাটি হলে জেলে মাসুদ রানাকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে শহিদুল ইসলামের ছোট ছেলে শাহেল কিলঘুশি মারতে থাকে, সেই সময়ে শহিদুল ইসলামের ছেলে এসে মাসুদ রানা কে লাঠিসোটা দিয়ে আঘাত করে মাথায় চোট পেয়ে মাথা ফেটে গুরুতর জখম হয়, তার সহযোগীরা ও স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে, মাসুদ রানার অবস্থা অবনতি হলে তাৎক্ষণিক উপজেলার স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।
উক্ত বিষয়ে মাসুদ রানার সঙ্গে কথা হলে তিনি জানান, পুকুরে মাছ মারার সময় জালের ঘাই টানার কথা নিয়ে কথা কাটাকাটি হলে আমার উপর রাগান্বিত হয়ে কিলঘুশি মারতে থাকে, এই ঘটনা দেখে তার ছেলে এসে লাঠি দিয়ে আমাকে আঘাত করতে থাকে লাঠি-আঘাতে আমার মাথা ফেটে যায় এই দেখে আমার সহযোগিরা আমাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করায়।
এবিষয়ে বিবাদী শহিদুল ইসলামের সঙ্গে মুঠো ফোনে কথা হলে তিনি বলেন, তেমন কোন মারামারি নয়, সামান্য একটা ব্যাপার।কথা কাটাকাটির ফলে এক দুইটি চড় থাপ্পড় মেরেছি এবং আমার ছেলের সঙ্গে ধস্তাধস্তি হয়েছে আর মাসুদের মাথা ফেটে গেছে কিনা আমি জানিনা।
এ বিষয়ে ধামইরহাট থানা অফিসার ইনচার্জ মো. মোজাম্মেল হক কাজীর সঙ্গে মুঠোফোনে কথা হলে তিনি জানান, ঘটনা শুনে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে গিয়ে খোঁজখবর নেওয়া হয়েছে, এই ঘটনার কোন অভিযোগ পাওয়া যায়নি, অভিযোগ পেলে সঠিক তদন্ত সাপেক্ষে দোষীদের আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর..
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com