শিরোনাম :
ধামইরহাট বড়থা ডি আই ফাজিল মাদ্রাসার বেহাল অবস্থা নওগাঁয় ডিবি পুলিশের অভিযানে ১০১ কেজি গাঁজাসহ গ্রেফতার ২ ধামইরহাটে অপহরণ মামলার আসামি ইয়াদুল পুলিশের হাতে আটক ধামইরহাটে অর্ধ বার্ষিকী সাফল্য উদযাপন ও যুব সমাবেশ অনুষ্ঠিত কুড়িগ্রামে যুব সংগঠন ব্যবস্থাপনা বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত নওগাঁর পত্নীতলায় তিন মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে র‌্যাব-৫ বগুড়ায় রেলের দূরত্ব ভিত্তিক রেয়াত বাতিলের প্রতিবাদে মানববন্ধন চাঁদপুর জেলায় ফরিদগঞ্জ উপজেলায় খাজে আহমেদ মজুমদার উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত ধামইরহাটে গ্রামের তরুণদের উদ্যোগে মসজিদের ধান কাটা চলছে নওগাঁয় মাদকসহ র‌্যাবের হাতে আটক ১

বরিশাল নগর আ.লীগের নতুন কমিটির দুই নেত্রীকে নিয়ে আলোচনা।

 এম আরিফুল ইসলাম, বরিশাল ব্যরোঃ
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ৪ জানুয়ারী, ২০২১
  • ৫৬৯ বার পঠিত

গতকাল রোববার রাতে গণমাধ্যমে প্রেরিত বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে প্রকাশিত হয় বরিশাল মহানগর আওয়ামী লীগের নতুন পূর্ণাঙ্গ কমিটি। সর্বশেষ সম্মেলনের প্রায় ১৩ মাস পরে গঠিত কমিটির সদস্য সংখ্যা ৭৫ জন। তবে নতুন এ কমিটির দুজন নারী সদস্যের নাম বিশেষ দৃষ্টি কেড়েছে ইতোমধ্যে। একজন বরিশালের প্রয়াত মেয়র শওকত হোসেন হিরনের স্ত্রী জেবুন্নেসা আফরোজ অন্যজন বর্তমান মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আব্দুল্লাহ’র সহধর্মিনী লিপি আব্দুল্লাহ।

প্রথমজন কমিটিতে জায়গা পেয়েছেন একমাত্র নারী সহ সভাপতি হিসেবে আরেকজন অন্তর্ভুক্ত হয়েছেন সদস্য হিসেবে। এই দুজনার মধ্যে জেবুন্নেসা আফরোজ রাজনীতিতে সক্রিয় ছিলেন। দশম জাতীয় সংসদের উপ নির্বাচনে স্বামীর স্থলাভিষিক্ত হন বরিশাল সদর আসনের সাংসদ হিসেবে। ২০১৬ সালে গঠিত হওয়া নগর আওয়ামী লীগের কমিটিতে পেয়েছিলেন সদস্য পদ। তবে তাকে নিয়ে সেসময় জল্পনা কল্পনা কম হয় নি।

সেবার মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি কিংবা সম্পাদক হবেন তিনি এমন গুঞ্জন উঠেছিল। কিন্তু গোলাম আব্বাস চৌধুরী দুলালকে সভাপতি ও একেএম জাহাঙ্গীরকে সম্পাদক করে গঠিত হওয়া সেই কমিটিতে তাকে রাখা হয় জ্যেষ্ঠ সদস্য হিসেবে। অন্যদিকে, লিপি আব্দুল্লাহ ২০১৮ সালে স্বামীর নির্বাচনী প্রচারণায় নেমে দৃষ্টি কাড়েন।

নগরীর বিভিন্ন ওয়ার্ডে অনুষ্ঠিত জনসংযোগে অংশ নেন তিনি৷ এরপর থেকে নগরীর বিভিন্ন সামাজিক অনুষ্ঠানে পাওয়া গেছে তাঁর সরব উপস্থিতি। তবে এর মধ্যে সন্তানদের নিয়ে দীর্ঘদিন তিনি কাটিয়েছেন প্রবাস জীবন। বেশ লম্বা সময় ধরে সক্রিয় রাজনীতির বাইরে জেবুন্নেসা আফরোজ নিজেও। সর্বশেষ একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নিজ এলাকায় আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রাপ্ত জাহিদ ফারুকের প্রচারণায় অংশ নিয়েছিলেন তিনি।

এরপর দলীয় কোন কার্যক্রমে খুব একটা দেখা যায় নি তাকে। তাদের ব্যাপারে বর্তমান মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি একেএম জাহাঙ্গীর বলেন, ‘তারা দুজনই আওয়ামী পরিবার থেকে উঠে আসা। দলের জন্য তাদের অবদান রয়েছে। এছাড়া বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ নারীর ক্ষমতায়নে বিশ্বাস করে। আমাদের দলীয় হাইকমান্ড চায় রাজনীতিতে নারীরা সামনের দিকে এগিয়ে আসুক’৷ সামনের দিনগুলোতে এই দুজন নেত্রী দলকে শক্তিশালী করতে ভূমিকা রাখবে বলেও জানান এই নেতা।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর..
এই ওয়েবসাইটের লেখা ও ছবি অনুমতি ছাড়া কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com